একটা নিশ সাইটের জন্য বাজেট কতো হলে ভালো হয়?

bangla niche website budget plan

নরমালি ১টা নিশ সাইটে ৪০-৫০ হাজার ওয়ার্ড থাকলে ওই সাইট গুগল এর কাছে  যথেষ্ট ভালো ১টা সাইট। মানে গুগল ওই সাইটকে মোটামোটি সেমি-অথরিটিটিভ একটা ওয়েবসাইট হিসেবে চিন্তা করে।

ধরে নিলাম আপনার সাইটে আপনি ৪০ হাজার ওয়ার্ড এর আর্টিকেল দিবেন, এর মধ্যে ২৫ হাজার ওয়ার্ড এর মানি আর্টিকেল, আর বাকি ১৫ হাজার ওয়ার্ডস এর ইনফো আর্টিকেল। এখানে আমরা  ৬০ঃ৪০%  এর মতো একটা রেশিও মেইনটেইন করবো।

আসেন এইবার টাকার অংকে যাই।

এভারেজ ১৭$ করে  প্রতি এক হাজার ওয়ার্ডস এর মানি আর্টিকেল এবং ১০$ করে প্রতি হাজার ওয়ার্ডস এর  ইনফো আর্টিকেল (ইউএসডলার এর হিসেবে) যদি আমরা লেখাই; তাহলে খরচটা আসে এমনঃ

২৫ হাজার ওয়ার্ডের মানি আর্টিকেল= ২৫*১৭$= ৪২৫$
১৫ হাজার ওয়ার্ডের ইনফো আরটিকেল=১৫*১০=১৫০$
ডোমেইন হোস্টিং থিমঃ কুপন কোড ইউজ করলে =৪০$ এনাফ
টোটাল=৬১৫$

বাংলা টাকায় হিসেব করলেঃ ৬১৫$* ৮১ টাকা ৪৯৮১৫/- টাকা।

টোটাল আরটিকেল, ডোমেইন হোস্টিং এবং সাইটের থিম কমপ্লিট। 🙂

এবার আসেন কন্টেন্ট এর স্ট্রাকচার এবং কেমন খরচ হতে পারে, সেটা নিয়ে কথা বলি।

কয়টা রিভিউ আর্টিকেল দিবেন? কয়টা লং টেইল আর কয়টা ইন্ডিভিজুয়াল? আর কয়টা ইনফো কন্টেন্ট?

১ঃ একটা মেইন আর্টিকেল ৬০০০ হাজার ওয়ার্ড
২ঃ ৩টা লং টেইল কিওয়ার্ড এর মানি আর্টিকেল প্রতি আর্টিকেল ৩ হাজার ওয়ার্ড=৯০০০ হাজার ওয়ার্ড
৩ঃ আলু vsপটল এই টাইপ লং টেইল ১টা =৩০০০ হাজার ওয়ার্ড
৪ঃ ৫ টা ইন্ডিভিজুয়াল প্রোডাক্ট রিভিউ যেমনঃ নকিয়া ১২০০ মডেল এর ফোন
৫ঃ স্যামসাং গুরু মিউজিক ২ ফোন ইত্যাদি ইনফরমেটিভ আর্টিকেল। প্রতি আর্টিকেল ১৫০০ ওয়ার্ড = ৭৫০০ ওয়ার্ড…

সুতরাং, কমপ্লিট মানি আর্টিকেল ২৫০০০ হাজার ওয়ার্ড এর।

আর ইনফো আর্টিকেল ১০০০/১৫০০ হাজার ওয়ার্ড করে ১২-১৫ টা কমপ্লিট ইনফো আর্টিকেল। 🙂

টোটাল=৪০০০০ হাজার অয়ার্ড কমপ্লিট।

এভাবে আগাতে থাকলে ১ম ধাপ কমপ্লিট হয়ে যাবে ৫০০০০/- হাজার টাকার মধ্যে।

এবার আসেন Off Page SEO/Backlink এর বিষয় নিয়ে আলোচনা করা যাক।

এখন মোটামোটি মানের সাইট থেকে এক্সেস্টিং/নিউ আর্টিকেল দিয়ে লিংক নিতে এভারেজ খরচ হয় ২৫-৫০$ এর আসেপাশে।
এভারেজ ৩০$ যদি ধরি প্রতি লিঙ্ক, এবং ২০-২৫টি লিঙ্ক যদি পাওয়া যায় তাহলে ৩৫০$ লিংক এর জন্য টোটাল বাজেট হতে পারে প্রথম দিকে।
তাহলে বাংলা টাকার কারেন্সিতে হিসেব করলে পসিবল ইনভেস্টমেন্ট দাড়ায়ঃ ৩৫০=৩০*৩৫০=২৮৩৫০/-টাকা।

ইনটোটাল ধরেন ৮০০০০/- টাকা মানে ১০০০$ এর ১টা বাজেট এর কিছু কম বেশি হতে পারে।

এইটুকু কাজ করলে আশা করা যায় ৩-৪টা কিওয়ার্ড রেঙ্কে চলে আসবে/আসার কথা।

তার থেকে মান্থলি ৫০-১০০$ আসে পাশে ইনকাম আশা উচিৎ আমি মনে করি। তারপর ওই টাকা নতুন করে আপনার সাইটে ইনভেস্ট করবেন এবং সাইটটাকে সামনের দিকে এগিয়ে নিয়ে যাবেন।

আর যদি সাইট ফেইল ও হয় তাহোলেও নতুন অবস্থায় আপনি মাত্র ১০০০$ লস করবেন তবে আপনি যা যা শিখবেন আর যেই অভিজ্ঞতা হবে তার দাম লাখ ডলার এর থেকেও বেশি।

নোটঃ অনেকের অনেক মতামত থাকতে পারে তবে আমি আমার টা বললাম কম বেশি ও হতে পারে কারণ লিংক বিল্ডিংটা পুরাই আলাদা বিষয় তাও যারা নতুন তারা যেনো ভয়ে পিছিয়ে না পড়েন তাই এভাবে ১টা সমিকরন দিলাম আরকি।

এডমিন নোটঃ

আমি রিজভি ভাই এর নিস সাইট বাজেটিং এর সাথে মোটামোটি একমত। তবে আপনার পছন্দ করা নিস অনুযায়ী বাজেটের চেয়ে কম অথবা বেশি লাগতে পারে। আর এই বাজেটটা আরেকটি বিষয়ের উপর নির্ভর করে। সেটি হচ্ছে আপনি কোন কোন কাজ নিজে করতে পারবেন। এই সম্পর্কে আগেও কথা বলেছিলাম। যাই হোক, আপনি যদি কন্টেন্ট নিজে লিখতে পারেন তাহলে খরচ অর্ধেক কমে যাবে। আপনি যদি লিঙ্ক বিল্ডিং নিজে করতে পারেন তাহলেও খরচ কমে আসবে। নিস সাইটটি নিজে ডিজাইন করতে পারলেও বাজেট কমে আসবে।

আশা করি বাজেট নিয়ে সবার দ্বিধা দূর হবে এবং একটা প্রপার প্ল্যান করে সামনের দিকে আগাতে পারবেন।

শুভ কামনা রইলো সবার জন্যে। 🙂

4 Comments

  1. Thanks a lot for your significant info. I think that many of us who are interested to go forward with niche site business or amazon affiliate marketing, the impression of budget is very much vital to all of us. I hope that you will publish more info to help us.

  2. ৪: ৫ টা ইন্ডিভিজুয়াল প্রোডাক্ট রিভিউ যেমনঃ নকিয়া ১২০০ মডেল এর ফোন
    ৫ঃ স্যামসাং গুরু মিউজিক ২ ফোন ইত্যাদি ইনফরমেটিভ আর্টিকেল। প্রতি আর্টিকেল ১৫০০ ওয়ার্ড ।
    এই গুলো কে তো আপনি মানি article বলেছেন তাহরে #৫ নম্বার; টা স্যামসাং গুরু মিউজিক ২ ফোন ইত্যাদি ইনফরমেটিভ আর্টিকেল। (ইনফরমেটিভ বুঝতে পারি নি ভাইয়া ক্লিয়ার করে বল্লে আমার জন্য বুঝতে সুভিদা হতো।

Leave a Reply