Last Updated on

এসইও তো অনেক হলো। চলুন আজকে প্রোডাক্টিভিটি নিয়ে কথা বলা যাক। এই পোস্টটা স্ক্রল করে পড়ার আগে কে কে পারেটো প্রিন্সিপাল (Pareto Principle) সম্পর্কে জানেন একটু হাত তুলেন কমেন্টে। 🙂

📂 জুশেফ জুরান নামের রোমানিয়ান ম্যানেজমেন্ট কনসাল্টেন্ট আসলে এই তত্ত্বের প্রবর্তক। তবে তিনি এই তত্ত্বটা ধার করেছিলেন ভিলফ্রেডো পারেটো নামের একজন ইতালিয়ান ইকনমিস্ট এর পাবলিশ করা একটা রিসার্স পেপার ( Cours d’économie politique ) থেকে। ১৮৯৬ সালে প্রকাশিত হওয়া এই রিসার্সে পারেটো দেখিয়েছিলেন যে – সমগ্র ইটালির ৮০% জমির মালিক এখানে বসবাস করা ২০% ইতালিয়ানদের। বেশ অবাক করা জিনিশ না? 

📂 এই প্রিন্সিপালটার মুল কথা হচ্ছে – আপনার সাফল্যের ৮০ ভাগ আসে আপনার কাজের ২০ ভাগ থেকে। মানে, সারাদিন আপনি যদি ১০০ টা কাজ করেন এবং আপনার সাফল্যের মানদণ্ড বা গোল যদি হয় ১০০, তাহলে পারেটো প্রিন্সিপাল এর সূত্র অনুযায়ী আপনার ২০ টি কাজ মূলত আপনার সর্বোচ্চ % সফলতা (৮০% এর চেয়ে বেশি) এনে দেয়। 

এই ট্যাকনিকটা কিন্তু আসলেই কাজের! 

📂 এবং আমরা যদি আমাদের যতো কাজ আছে তার মধ্য থেকে ওই ২০% খুঁজে বের করতে পারি যেগুলো আমাদের সাফল্যে ৮০% এর ও বেশি অবদান রাখছে; তাহলে আমরা খুব দ্রুত যে কোন কাজে সফল হতে পারবো খুব তাড়াতাড়ি। ইন্টারেস্টিং, না? 

📂 যেমন ধরুন – আমরা তো অনেক ভিডিও বা টিউটোরিয়াল দেখি শেখার জন্যে। এখন আমরা যদি আমাদের মোট সময়ের ২০% ব্যয় করি শেখার কাজে আর বাকি সময়টা (৮০%) প্রাকটিসে; তাহলে আমাদের সাফল্যের সম্ভবনা বেশি থাকবে। 

📂 যেসব সাইট অথবা সোর্স থেকে আমাদের ইনকাম হচ্ছে এখন; সেসব সোর্সে যদি আমরা বেশি সময় দেই; তাহলে সেটা আমাদের টোটাল ইনকামে প্রভাব ফেলবে। তারমানে আপনার হাতে যদি ১০ টা ইনকাম সোর্স থাকে, তখন খেয়াল করে দেখবেন ওই ১০ টার মধ্যে ২ টা সোর্স আপনার ৮০% ইনকাম এনে দিচ্ছে। সুতরাং আমরা যদি ওই ২টা (২০%) সোর্সে ফুল ফোকাস করতে পারি, তাহলে আমাদের সাফল্যের ভাগ ৮০% থেকে ১০০% করা অস্বাভাবিক করা কোন কঠিন ব্যাপার না। 

📂 আমরা যেসব ব্লগ বানাই; দেখবেন সব পেজ/কন্টেন্ট কিন্তু আমাদের ট্রাফিক দেয় না। গুটিকয়েক পেজ থেকে আমরা আমাদের সাইটের সব ট্রাফিক পাই। 

🙂 এইটার ক্ষেত্রেও কিন্তু এই পারেটো তত্ত্ব কাজ করে। তারমানে প্রায় ২০% কন্টেন্ট আমাদের সাইটের ৮০% বা তারও বেশি ট্রাফিক এর জন্যে দায়ি। 

সুতরাং চলুন, আমরা সবাই, সবার ওই ২০% খুঁজে বের করি।