Garry-Illias-in-Pubcon

এসইও র‍্যাঙ্কিং ফ্যাক্টরস নিয়ে গুগলের Gary IIlyes এর প্রশ্নোত্তর পর্ব – পাবকন!

Last Updated on

Pubcon Las Vegas 2019 আপডেট। 

গত কয়েকদিন আগে শেষ হওয়া পাবকন অক্টোবার ২০১৯ কনফারেন্সটা ছিল আমাদের মতো এসইওদের জন্যে বেশ ইন্টারেস্টিং! বেশ কয়েকজন গুগল এবং বিং এর ওয়েবস্প্যাম/র‍্যাঙ্কিং/হ্যাপিনেস ইঞ্জিনিয়ার ছিলো ওখানে যারা এসইও এবং এই রিলিটেড অনেক প্রশ্নের সমাধান করেছে। এসইও ইন্ডাস্ট্রিকে গুগল সবসময় এভয়েড করতো। কিন্তু মজার বিষয় হচ্ছে – এসইও ব্যাপারটাকে তারা বেশ গুরুত্বের সাথে নিচ্ছে ইদানীং এবং ওয়েবমাস্টার টুলস, টুইটার ও রেডিটের মাধ্যমে বিভিন্ন প্রশ্নের উত্তর দিচ্ছে – যেটা আমাদের মতো প্রফেশনালদের জন্যে সুখকর! 

চলুন আসল কথায় ফিরে আসি। 

গুগলের  Gary Illyes এর কাছ থেকে অনেক অজানা প্রশ্নের উত্তর পাওয়া গেছে। 

এসইএম পোস্টের Jennifer Slegg এর করা কিছু প্রশ্ন এবং গুগলের Gary Illyes এর উত্তর গুলো নিচে দেয়া হলো এক এক করে। আশা করি আপনাদেরও কাজে লাগবে – 

💥 গুগলের নতুন দুইটা rel=ট্যাগ যেমন – rel-sponsored and ugc এই দুইটা কি সাইটের এসইওতে কোন কাজে আসবে? 

উত্তর – না। এইটা জাস্ট গুগলকে হেল্প করবে। 

💥 নফলো লিঙ্ক তো এখন গুগল ইচ্ছে করলে কাউন্ট করবে, এতে স্পামিং বেড়ে যাওয়ার আশঙ্কা আছে কি? 

উত্তর – না। কারণ গুগল একমাত্র হাই অথোরিটি সাইটে সত্যিই রিকমেন্ড করা নফলো লিঙ্ককে কাউন্ট করবে শুধু। বাকি সবগুলোকে আগের মতোই উপেক্ষা করা হবে। 

💥 গুগলের পেঙ্গুইন আপডেট কি এখনো কাজ করছে ব্যাকএন্ডে? 

উত্তর – হা। পেঙ্গুইনে নতুন অনেক কিছু এড হয়েছে। এবং রিসেন্টলি চালু হওয়া কোর আপডেট বেশ ভালোভাবেই চালু আছে এবং কাজ করছে। 

💥 ওয়েবসাইট অওনারদের কি নিয়মিত লিঙ্ক অডিট করা উচিত? এবং আপনার ফিডব্যাক কি লিঙ্ক ডিজএভো এর ক্ষেত্রে? 

উত্তর – হা অবশ্যই লিঙ্ক অডিট করা উচিত, যদি তারা কখনো উলটাপাল্টা লিঙ্ক করে অথবা লিঙ্ক কিনে। 🙂 কিন্তু সব সময় স্প্যাম লিঙ্ক ডিজএভো করলেও কাজে আসে না। আমি দেখেছি অনেক সাইট অওনাররা স্প্যামই লিঙ্ক না, এমন সব লিঙ্কও ডিজএভো করে ফেলে। এটা অনেকটা নিজের পায়ে নিজেই গুলি করার মতো। 🙂 

💥 ওয়েবমাস্টার টুলসএ অনেক সময় সব ব্যাক্লিঙ্কস শো করে না। এক্ষেত্রে আমাদের মতো এসইও রা আসলে কিভাবে লিঙ্ক অডিট করবে? 

উত্তর – ওয়েবমাস্টার টুলসএ যেসব লিঙ্ক শো করে সেগুলোই আপনি প্রসেস করলে ম্যানুয়াল একশন থেকে বাঁচতে পারবেন। 

My Personal Note: আমার ব্যক্তিগত মতামত হচ্ছে; গুগল যা বলে সবসময় বিশ্বাস করতে নেই।:)  আপনি অবশ্যই ওয়েবমাস্টার এর লিঙ্কস + ahrefs এর লিঙ্কস প্রোফাইল একসাথে করে লিঙ্ক অডিট করবেন। 

💥 গুগল E.A.T এবং Core Updates এইগুলোকে কিভাবে প্রসেস করে? গুগলের পেজ র‍্যাঙ্ক এর মতো কোন স্কোর আছে কি ইন্টারনালি? 

উত্তর – না। কোন স্কোর নেই। ইনফ্যাক্ট – E.A.T ইস্যুটা অনেকটাই Quality Raters দের জন্যে। তবে আমাদের ছোট ছোট মিলিওনস অব এলগোরিদম আছে যেগুলা দিয়ে আমরা  সিগন্যাল খুঁজি একটা ওয়েবসাইটে। এবং সব এলগো একসাথে কাজ করে একটা ওয়েবসাইটের র‍্যাঙ্কিং এর জন্যে। এই সব লাখো ছোট ছোট এলগোই E.A.T এবং YMYL পেজ/সাইট গুলার মধ্যে র‍্যাঙ্কিং করার মতো সিগনাল খুঁজে এবং র‍্যাঙ্ক করে অথবা র‍্যাঙ্ক থেকে সরিয়ে দেয়। 

💥 গুগল কি একটা ওয়েবসাইটের অথর/পাবলিশার কে সেটা বোঝার চেষ্টা করে? 

উত্তর- গুগল নিউজ এবং স্কলারের জন্যে অথর বুঝার চেষ্টা করে। কিন্তু নরমাল ওয়েবসাইটের জন্যে আমরা অথর খুঁজি না বরং এনটিটি খুঁজি। 

My Personal Note: এনটিটি বলতে এখানে গুগল বোঝানোর চেষ্টা করেছে যে ওই অথরের পজিটিভ অনলাইন প্রেজেন্স। ধরুন আপনি যদি এসইও নিয়ে কাজ করেন, তবে অবশ্যই কোথায় কোথায় আপনার পদচরণ থাকার কথা? কোথায় কোথায় আপনার কন্ট্রিবিউশন থাকার কথা? সেইসব ঘেঁটেই গুগল অথর এন্টিটি বুঝার চেষ্টা করে। তারমানে অথর প্রোফাইল তো লাগবেই, সাথে সাথেই ওই অথরের সুনামও লাগবে। 🙂 

💥 গুগল কি একটা ওয়েবসাইটের কন্টাক্ট পেজ অথবা এবাউট পেজ দেখে? এবং এইগুলো না থাকলে কি এসইও তে কোন এফেক্ট ফেলে? 

উত্তর – গুগলের নলেজ গ্রাফ ওগুলো দেখে। 

💥 মানুষ কি তাদের সাইটের E.A.T  বাড়াতে পারবে? এবং এটা কি র‍্যাঙ্কিং এ প্রভাব ফেলে? 

উত্তর – হা, আপনি যদি আপনার সাইটের  E.A.T  বাড়াতে পারেন তাহলে অবশ্যই এটা একটা ভালো দিক। ( ট্যাকনিক্যাল উত্তর – আমাদের বুঝে নিতে হবে আসলে 🙂 ) 

My Personal Note: গুগলের কোয়ালিটি রেটারস গাইডলাইনটা ভালো করে পড়ুন। তারপর দেখুন আপনার ওয়েবসাইটে কোন কোন জিনিশগুলো ইমপ্লেমেন্ট করার বাকি আছে। সেগুলো ইমপ্লেমেনট করে ফেলুন। তাইলেই   E.A.T নিয়ে চিন্তা করতে হবে না। আমাদের NShamimPRO তে  E.A.T নিয়ে যে ভিডিওটা আছে; সেটা বার বার দেখুন। 

💥 এলগোরিদম আপডেটের সময় কি সাইটের ক্রলিং রেট বাড়ে? 

উত্তর – হা বাড়তে পারে। তবে এটা সব ওয়েবসাইটের জন্যে প্রযোজ্য না। 

💥 গুগল কোন ধরনের মেডিক্যাল সাইট গুলোকে র‍্যাঙ্ক করে? এবং কোন মেডিক সাইট ভালো আর কোনটা ভালো না, সেটা গুগল কিভাবে খুঁজে বের করে? 

উত্তর – আমি এইটা নিয়ে আসলে খুব বেশি তথ্য দিতে চাচ্ছি না ( আহা সত্যবাদী :))। তবে যারা সত্যিই অথরিটিটিভ, তারা আসলে জানে ওদের সাইটে কি কি করতে হবে। 

💥 আমাদের সাইটে যদি এমন কন্টেন্ট থাকে যেগুলোতে আর আপডেট করার কিছু নাই; সেইসব কন্টেন্ট কিভাবে হ্যান্ডেল করে উচিত? 

উত্তর – ধরুন আপনি ডাইনোসর নিয়ে লিখেছেন। এখন ওখানে তো নতুন কিছু ঘটার কিছু নাই। কারণ ডাইনোসর নিয়ে তো আর কিছু ঘটবে না এই পৃথিবীতে। সুতরাং, আপনার ওই কন্টেন্ট আপডেট করতে হবে না। 

💥 গুগলের ম্যানুয়াল একশন ঠিকঠাক হতে কেমন সময় লাগতে পারে? 

উত্তর – ২ মাস থেকে ২ বছরও লেগে যেতে পারে। 

💥 ডোমেইন এর বয়স কি র‍্যাঙ্কিং ফ্যাক্টর? 

উত্তর – ডোমেইনের বয়স ব্যাপার না। কিন্তু ধরেন একটা সাইটের বয়স ৫ বছর; এখন এই ৫ বছরে সাইটটা কি কি অথরিটি গেইন করেছে সেটা একটা ম্যাটার। একদম সিমিলার নিশ হলে ডোমেইন রিডাইরেক্ট করলে ভালো ফল পাওয়া যাবে। কিন্তু যদি ক্লোজ নিশ না হয়; তাহলে আমরা অল্মোস্ট সব এসইও সিগনাল/ভোট ড্রপ করে ফেলি। 

💥 একটা পেজে অনেক এড থাকলে সেটা কি সাইটের র‍্যাঙ্কিং এ প্রভাব ফেলে? 

উত্তর – হা প্রভাব ফেলে। গুগলের “Page Layout algorithm” টা এখনো চালু আছে। 

💥 ডোমেইনের মধ্যে কিওয়ার্ড থাকলে সেটা কি র‍্যাঙ্কিং এ কোন কাজে লাগে? 

উত্তর – কিছুটা কাজে লাগে কারণ ইউজাররা বুঝতে পারে যে সাইটটা কি নিয়ে। কিন্তু স্পামাররা যেটা করে; সেটা এখন আর কাজ করবে না। 🙂 

💥 CTR% কি র‍্যাঙ্কিং ফ্যাক্টর? 

উত্তর – না। এটা ইউজার এর সার্চ রেজাল্ট পার্সোনালাইজেশন এর ক্ষেত্রে কাজে লাগে। 

💥 উইকিপেডিয়া এবং এই ধরনের বড় বড় সাইটকে যদি আমরা লিঙ্ক দেই; তাহলে কি সেটা আমাদের সাইটের র‍্যাঙ্কিং এ কাজে লাগে? 

উত্তর – যতো বেশি পারেন রেফারেন্স দেন। ধরুন আপনি লিখলেন যে – “গাজরের রস ক্যান্সার রোধ করে”। তাহলে অবশ্যই আপনি এমন রিসোর্স পাবেন যেখানে এই টপিকটা নিয়ে আরও বিশদ আলোচনা করা হয়েছে। আপনার অবশ্যই সেই রিসোর্সকে রেফার করা উচিত। 

💥 ওয়েবসাইটের এক্সিসিবিলিটি কি র‍্যাঙ্কিং ফ্যাক্টর? 

উত্তর – না। তবে আপনি যদি একটা ইমেজে Alternative Tags দেন তাহলে যারা ইমেজ দেখে না; তাদের জন্যে হেল্পফুল হবে। যেটা আলটিমেটলি র‍্যাঙ্কিং এ প্রভাব ফেলে। 

💥 আমার ব্রান্ড নেম যদি বিভিন্ন যায়গায় ম্যানশন করা হয় এবং সেগুলা থেকে যদি লিঙ্ক না পাই, জাস্ট ব্রান্ড ম্যানশনের জন্যে আমার সাইট কোনভাবে উপক্রিত হতে পারে কি? 

উত্তর – পরোক্ষভাবে হা। মানে আপনার ব্রান্ডকে ভালোভাবে গুগল বুঝতে পারবে যেটা হয়তো র‍্যাঙ্কিং এ প্রভাব ফেলবে। 

💥 ওয়ার্ড কাউন্ট কি র‍্যাঙ্কিং ফ্যাক্টর? মানে, যতো বড় আর্টিকেল, ততো ভালো র‍্যাঙ্কিং? 

উত্তর – ধরুন, আপনি একটা আর্টিকেল লিখলেন – “কিভাবে ডিম সিদ্ধ করতে হয়”। আমার মনে হয় – এইটা বোঝানোর জন্যে আপনার অনেক অনেক শব্দের বা বড় আর্টিকেলের  প্রয়োজন নেই। আপনি হয়তো এখানে লিখতে পারেন যে – কোন ধরনের মুরগি সবচেয়ে ভালো ডিম দেয়, তবে এটা যে আপনার আর্টিকেলকে অনেক রিলিভেন্ট করবে সেটা কিন্তু না। 

My Personal Note: আমার ব্যাক্তিগত মতামত হচ্ছে যদি সম্ভব হয় – একটু বড় আর্টিকেল (বেশি শব্দের) দেয়ার চেষ্টা করবেন। কারণ E.A.T., Author Entity এবং Fact Accuracy সব বড় আর্টিকেলেই ফুটিয়ে তোলা যায় সহজভাবে।

💥 কন্টেন্ট এর ফ্যাক্ট একুরিসি অথবা নিখুঁত কন্টেন্ট কি র‍্যাঙ্কিং ফ্যাক্টর? 

 YMYL ( আপনার টাকা অথবা আপনার জীবন :)) টাইপের কন্টেন্ট এর জন্যে আমরা অবশ্যই নিখুঁত কন্টেন্ট খুঁজি যেখানে সব ফ্যাক্টস পারফেক্ট থাকে। 

*** পাবকন থেকে আরও অনেক কিছু পেয়েছি যেগুলো বেশ বেশ ইন্টারেস্টিং এবং আপনাদের সাথে শেয়ার করার মতো। সময় পেলে সেগুলো অন্য কোন একদিন শেয়ার করবো। Gary Illyes এর এই সাক্ষাতকারটার অনেক প্রশ্ন এবং উত্তর আমি বাংলাতে সহজভাবে বোঝানোর জন্যে নিজের ভাষায় লিখেছি। সুতরাং কেউ আবার সরাসরি ইংলিশ থেকে বাংলা করতে গিয়ে আমাকে বকাবকি কইরেন না। 🙂 আসল জিনিসগুলো কিন্তু একদম অরিজিনাল এবং ইন্ট্যাক্ট রাখার চেষ্টা করেছি। 

About the author

নাসির উদ্দিন শামীম

নাসির উদ্দিন শামীম এসইও নিয়ে কাজ করছেন ২০১০ থেকে।ইতোমধ্যে, DevsTeam, LateNightBirds, NShamimPRO এবং আরো অনেক ইন্টারনেট বেসড কোম্পানি ফর্ম করেছেন। NShamim.Com ব্লগে ইন্টারনেট মার্কেটিং নিয়ে বাংলা ভিডিও টিউটোরিয়াল দিয়ে হাজারো বাংলা ভাষাভাষীদের কর্মসংস্থানের ব্যবস্থা করেছেন। যারা ভিডিও দেখতে পারছেন না, অথবা পর্যাপ্ত ইন্টারনেট না পাওয়ার কারনে ইউটিউব থেকে ভিডিও ডাউনলোড করতে পারছেন না, তাদের জন্যেই মূলত এখানে বাংলায় লিখছেন। সাথেই থাকুন।

View all posts

1 Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *